৫ ধরনের ত্বকের জন্য প্রাকৃতিক টোনার রেসিপি



টোনার  নিয়ে এর আগেও আমি বেশ কয়েকটি পোস্ট করেছি। আমার কাছে অনেক রিকুয়েস্ট এসেছিল, আমি যেন কিছু ঘরোয়া টোনার বানানোর রেসেপি সেয়ার করি। আজ সেই রিকুয়েস্টগুলিকে মাথায় রেখে কিছু ঘরোয়া টোনার তৈরির পদ্ধতি সেয়ার করবো।

রেডিমেড টোনার ব্যবহারে পাশাপাশি আমি নিয়মিত ঘরে তৈরি টোনারও ব্যবহার করি। এখন হয় তো আপনার মনে প্রশ্ন আসতে পারে যে, ঘরে তো টোনার তৈরি করা যেতে পারে কিন্তু ত্বকের ধরন অনুশারে কিভাবে তৈরি করবেন ? তাই তো ?  আজকের পোস্টে আমি ৫ ধরনের ত্বকের টোনার রেসিপি সেয়ার করবো, আপনি শুধু আপনার ত্বকের ধরন অনুশারে সঠিক টোনারটি বেছে নিন।


Read More : টোনার আইস কিউব


১। তৈলাক্ত ত্বকের জন্য ঘরে তৈরি টোনার

তৈলাক্ত ত্বকের বড় সমস্যা হচ্ছে ত্বকে সহজেই ময়লা জমে যায় এবং তার থেকে দেখা দেয় ব্রণ। ব্রণ সেরে গেলে ত্বক একটা বিশ্রী কালো দাগ পরে আর কারও কারও তো মুখে বড় বড় ছিদ্রও দেখা দেয়।
তৈলাক্ত ত্বকের এই সমস্যা দূর করার জন্য 2 বিস্ময়কর প্রাকৃতিক টোনার হল -
  • গরম জল ১/৪ কাপ নিন এতে বেকিং সোডা ১ tbsp এবং ২ tbsp গোলাপ জল মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রনে একটি তুলোর বল ডুবিয়ে নিয়ে, সারা মুখে বলটি ১ মিনিটের মতো বুলিয়ে নিন। এই পদ্ধতি দিনে দু’বার করুন। যতো দিন না আপনি মনের মতো রেজাল্ট পাচ্ছেন ততো দিন এই পদ্ধতি রিপিট করুন। এই টোনার ত্বককে উজ্জ্বল, পরিষ্কার এবং তেল মুক্ত রাখতে সাহায্য করে। 
  • সবুজ চা্র জল ১/৪ কাপের মধ্যে  ২ tbsp ঘৃতকুমারী জেল দিয়ে মিশ্রন তৈরি করুন এই মিশ্রিতটি। ঠিক আগের টোনার টির মতো ব্যবহার করুন।


২। শুষ্ক ত্বকের জন্য ঘরে তৈরি টোনার

শুকনো চামড়ার আর্দ্রতা দ্রুত হারায় এবং এ থেকে ত্বক রুক্ষ ও শুষ্ক দেখায়।  এই ধরনের ত্বকে বলিরেখা বা  সূক্ষ্ম  লাইন হবার সম্ভাবনা অধিক। তার শুষ্ক ত্বকে টোনার ব্যবহার অতি প্রয়োজন এটি ত্বকে  hydrate করে এবং ফিরিয়ে আনে ত্বকের মধ্যে আর্দ্রতা।
  • ৩ tbsp গোলাপ জলের সঙ্গে ১ tbsp গ্লিসারিন একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। তুলোর সাহায্যে প্রতিদিন এই মিশ্রণটি মুখে ২ বার করে লাগান। এই মিশ্রন ত্বককে নরম ও মসৃণ করতে সাহায্য করে।
  • শুষ্ক  ত্বকের জন্য নারকেল দুধ একটি চমত্কার moisturizer এবং টোনার হিসাবে কাজ করে। ১/৪ কাপ নারকেল দুধের সঙ্গে tbsp কেসটার ওয়েল মিশিয়ে নিন। প্রতিদিন রাতে এই টোনার ব্যবহার করুন।  এটি ত্বকের রঙ উজ্জ্বল এবং নমনীয় করতে সাহায্য করে।


৩। পিগমেন্টেড ত্বকের জন্য টোনার
ত্বকের অতিমাত্রায় মেলানিনের উপস্থিতির ফলে ত্বকের স্বাভাবিক রং এর মধ্যে বেমানান দাগ দেখা দেয়। টোনার ত্বকের উপরের এই বেমানান দাগ দূর করতে সাহায্য করে।
  • পিগমেন্টেশন দূর করতে দই ব্যবহার করা যেতে পারে। ঘরে পাতা ঠাণ্ডা দই এর সঙ্গে গোলাপ জল মিশিয়ে নিয়ে মিশ্রনটি ত্বকে লাগিয়ে রাখুন ২০ মিনিটের মতো। প্রতিদিন দিনে একবার করে এটি ব্যবহার করুন। এই টোনার ত্বকের স্বাভাবিক রঙ ফিরিয়ে আনতে সাহায্য করে।   
  • 2 tbsp গোলাপ জলের সঙ্গে ১ tbsp আপেল সিডার ভিনেগার মিশিয়ে টোনার হিসাবে দিনে দুবার ব্যবহার করুন। এই টোনারটি পিগমেন্টেড  ত্বকের জন্য আদর্শ।


৪। সংবেদনশীল ত্বকের জন্য টোনার

সংবেদনশীল ত্বকে কিন্তু সব ধরনের প্রডাক্ট সুট করে না। এমন কি অনেক সময় প্রাকৃতিক উপাদানও সংবেদনশীল ত্বকের শত্রু হয়ে দাঁড়ায়। এই ধরনের ত্বকের লক্ষণ হল, কিছু লাগানোর পরে সুট না করলেই ত্বক লাল হয়ে উঠে, জ্বালা বা  irritation হতে থাকে। ত্বকে     অত্যন্ত সূক্ষ্ম সূক্ষ্ম rashesও দেখা দেয়। এই ধরনের ত্বকের জন্য  ঠাণ্ডা উপাদান দিয়ে তৈরি টোনার প্রয়োজন হয়। যা ত্বকে টোনিং এর পাশাপাশি ময়শ্চারাইজিংও করবে। এখানে সংবেদনশীল ত্বকের জন্য ২ টি প্রাকৃতিক টোনার উল্লেখ করলাম।
  • আধা কাপ ঠান্ডা জলের সঙ্গে ২ tbsp মধু ও ২ tbsp ঘৃতকুমারী জেল মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণটি একদিন অন্তর অন্তর দিনে দু’বার করে মুখে লাগান।  
  • tbsp ঠান্ডা দুধ সঙ্গে ১ tbsp গোলাপ জল মিশিয়ে নিয়ে প্রতিদিন মুখে লাগান। এই টোনার  সংবেদনশীল ত্বকে সতেজটা আনে এবং ত্বককে প্রাকৃতিক ভাবে উজ্জ্বলতা প্রদান করে।


৫। ব্রণ যুক্ত ত্বকের জন্য প্রাকৃতিক টোনার

যাদের ত্বকে ব্রণ রয়েছে তাদের এমন টোনার ব্যবহার করতে হবে যা ত্বকের ব্যাকটেরিয়া এবং অন্যান্য জীবাণুর নাশ করতে পারে। এই প্রাকৃতিক টোনার ত্বকের বাড়তি তেল নিয়ন্ত্রণ এবং ব্রণের ব্যাকটেরিয়া নাশ করতে সাহায্য করবে।

Read More : ব্রণ যুক্ত ত্বকের ৫ টি সেরা টোনার 
  • এক কাপ জলে কয়েকটি তুলসী পাতা থেঁতো করে মিশিয়ে নিন। এবার এটি জ্বাল দিয়ে আধা কাপের মতো করে নিন। এই তুলসি জলে সঙ্গে মিশিয়ে নিন এক চামচ ঘৃতকুমারী জেল। এই টোনার দিনে দু’বার ব্যবহার করুন। এটি ব্রণ নিয়ন্ত্রন করতে সাহায্য করে।
  • অন্য আরেকটি টোনার যা ব্রণ যুক্ত ত্বকের জন্য বিশেষ উপযোগী তা হল,  মেথীর (মেথি) জল। এক কাপ ফিল্টার জলে মেথি সারা রাত ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন সেই জল তুলোর সাহায্যে মুখে লাগিয়ে নিন।
Read More : উজ্জ্বল ত্বকের জন্য ঘরোয়া টোনার



কেমন লাগলো জানাবেন। কোন প্রশ্ন থাকলে অবশ্যই করুন। আপনার যদি আরও কোন প্রকারের প্রাকৃতিক টোনার রেসিপি চাই, তাহলে নীচের কমেন্ট সেকশনে উল্লেখ করতে ভুলবেন না। আমি অবশ্যই সেই রেসিপি সেয়ার করবো। আর টিপসগুলি অবশ্যই সেয়ার করতে ভুলবেন না।   

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

1 মন্তব্য

  1. ত্বক উজ্জল করতে কে না চায়! আপনার এই সকল দারুন টিপসের জন্য ধন্যবাদ। এরকম আরও খুজে পাওয়া যাবে সোস্যাল বাংলা ডট কমে। যেখানে আপনার জন্য রয়েছে অসাধারণ টিপস। সোস্যাল বাংলা

    উত্তর দিনমুছুন